দেশে শনাক্ত হার নেমে দেড় শতাংশে

স্বদেশ বিদেশ ডট কম

  • প্রকাশিত: ২৫ অক্টোবর ২০২১, ৫:৪৬ পূর্বাহ্ণ

গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাতে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছে আরও ৯ জনের। আর এ সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ২৭৫ জন। এতে দৈনিক শনাক্তের হার ফের দেড় শতাংশেরও নিচে এসেছে।
রোববার স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনা বিষয়ক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, নতুন শনাক্ত হওয়া ২৭৫ জনকে নিয়ে দেশে সরকারি হিসেবে এখন পর্যন্ত করোনাতে মোট শনাক্ত হলেন ১৫ লাখ ৬৭ হাজার ৬৯২ জন। আর মারা যাওয়া ৯ জনকে নিয়ে দেশে সরকারি হিসেবে এখন পর্যন্ত করোনাতে আক্রান্ত হয়ে মোট মারা গেলেন ২৭ হাজার ৮২৩ জন।
করোনাতে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় (শনিবার সকাল ৮টা থেকে রোববার সকাল ৮টা পর্যন্ত) সুস্থ হয়েছেন ৩৮৬ জন। তাদের নিয়ে দেশে করোনাতে আক্রান্ত হয়ে মোট সুস্থ হলেন ১৫ লাখ ৩১ হাজার ৩২৭ জন।
গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাতে রোগী শনাক্তের হার এক দশমিক ৪৯ শতাংশ। এর আগে গতকাল শনাক্তের হার ছিল ১ দশমিক ৮৫ শতাংশ। তার আগের দিনে শুক্রবার রোগী শনাক্তের হার ছিল ১ দশমিক ৩৬ শতাংশ।
দেশে এখন পর্যন্ত করোনাতে রোগী শনাক্তের হার ১৫ দশমিক ৩৪ শতাংশ। শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৭ দশমিক ৬৮ শতাংশ আর শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুহার এক দশমিক ৮৮ শতাংশ।
অধিদফতর জানাচ্ছে, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনার নমুনা সংগৃহীত হয়েছে ১৮ হাজার ৪৯৯টি আর নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৮ হাজার ৪৮৫টি।
দেশে এখন পর্যন্ত করোনার মোট নমুনা পরীক্ষা হয়েছে এক কোটি দুই লাখ ২২ হাজার ১৫০টি। এর মধ্যে সরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা হয়েছে ৭৪ লাখ ৫৬ হাজার ১৭৬টি আর বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় পরীক্ষা হয়েছে ২৭ লাখ ৬৫ হাজার ৯৭৪টি।
গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাতে মারা যাওয়া ৯ জনের মধ্যে পুরুষ তিনজন আর নারী ছয়জন। তাদের নিয়ে দেশে করোনাতে আক্রান্ত হয়ে এখন পর্যন্ত মোট পুরুষ মারা গেলেন ১৭ হাজার ৮১৭ জন আর নারী মারা গেলেন ১০ হাজার ছয়জন।
তাদের মধ্যে বয়স বিবেচনায় ১১ থেকে ২০ বছরের মধ্যে রয়েছে একজন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে দুইজন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে দুইজন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে তিনজন আর ৯১ থেকে ১০০ বছরের মধ্যে রয়েছেন একজন।
মারা যাওয়া ৯ জনের মধ্যে সবচেয়ে বেশি রোগীর মৃত্যু হয়েছে ঢাকা বিভাগে ৬ জন। বাকিদের মধ্যে চট্টগ্রাম বিভাগে ২ জন আর সিলেট বিভাগে মারা গেছেন ১ জন।
অধিদফতর জানাচ্ছে, মারা যাওয়া ৯ জনের মধ্যে সরকারি হাসপাতালে মারা গেছেন আটজন আর বেসরকারি হাসপাতালে মৃত্যু হয়েছে ১ জনের।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই সম্পর্কিত আরও খবর...