বাংলাদেশ হাই কমিশন, লন্ডন ও ইন্টারন্যাশনাল মেরিটাইম অর্গানাইজেশন এর যৌথ আলোচনা সভা

স্বদেশ বিদেশ ডট কম

  • প্রকাশিত: ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:৩৬ পূর্বাহ্ণ

বাংলাদেশ হাই কমিশন, লন্ডন ও ইন্টারন্যাশনাল মেরিটাইম অর্গানাইজেশন এর যৌথ উদ্যোগে গতকাল শুক্রবার লন্ডনে আয়োজিত এক উচ্চ পর্যায়ের আলোচনা সভায় বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত ও আইএমও-এর স্থায়ী প্রতিনিধিরা জাতিসংঘের ২৯তম সাধারণ অধিবেশনে দেয়া বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ঐতিহাসিক ভাষণের উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করেন।

বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ.কে. আব্দুল মোমেন এ বিশেষ ভার্চুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। যুক্তরাজ্যে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার এবং আইএমও-তে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি সাইদা মুনা তাসনীম-এর সভাপতিত্বে এ বিশেষ অনুষ্ঠানে গেষ্ট-অব-অনার হিসেবে আইএমও এর সেক্রেটারী জেনারেল কিটাক লিম এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে কমনওয়েলথ-এর সেক্রেটারী জেনারেল পেট্রেসিয়া স্টকল্যান্ড বক্তব্য রাখেন।

অনুষ্ঠানে ভারত, জাপান, কেনিয়া, মালয়েশিয়া, নেদারল্যান্ডস, নরওয়ে, সৌদি-আরব এবং সেন্ট কীটস ও নেভিস-এর রাষ্ট্রদূত ও আইএমও-এর স্থায়ী প্রতিনিধিসহ যুক্তরাজ্যের ফরেন, কমনওয়েলথ ও ডেভেলপমেন্ট অফিস এবং যুক্তরাজ্যের ন্যাশনাল কমিটি ফর ইউনেস্কো-এর প্রধান নির্বাহী বক্তব্য রাখেন।

এছাড়া যুক্তরাজ্য ও আয়ারল্যান্ডে বসবাসকারী ব্রিটিশ-বাংলাদেশি কমিউনিটির বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গসহ বিপুল সংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশি অংশ নেন। পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ.কে. আব্দুল মোমেন তাঁর বক্তব্যে বঙ্গবন্ধুর জাতিসংঘে দেয়া ঐতিহাসিক ভাষণের উল্লেখ করে বলেন, ‘‘ ৪৬ বছর আগে ২৫ সেপ্টেম্বর ১৯৭৪ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু জাতিসংঘের ২৯তম সাধারণ অধিবেশনে বাংলা ভাষায় তাঁর ঐতিহাসিক ভাষণ প্রদানের মাধ্যমে বহুপাক্ষিক সুসম্পর্ক, বিশ্বশান্তি, সমৃদ্ধি ও প্রগতির কথা তুলে ধরেছিলেন, যা বাংলাদেশের পররাষ্ট্র নীতিরও মূল ভিত্তি।

  • 1
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    1
    Share

এই সম্পর্কিত আরও খবর...