ইউরো ২০২০ : নকআউটে জার্মানি-পর্তুগাল

স্পোর্টস ডেস্ক

  • প্রকাশিত: ২৪ জুন ২০২১, ১১:৫৯ পূর্বাহ্ণ

জিতলে শেষ ষোলোয় হাঙ্গেরি। অন্যদিকে শেষ রাউন্ডের ম্যাচে হারলে বিদায় জার্মানির। এমন ম্যাচে দুবার এগিয়ে গিয়ে স্বপ্ন ছোঁয়ার পথেই ছিল জার্মানির সঙ্গে ফিফা র‍্যাঙ্কিংয়ে ২৫তম ব্যবধানে পিছিয়ে থাকা হাঙ্গেরি। শেষ বাঁশি বাজার মিনিট সাতেক আগ পর্যন্তও জার্মানিকে বিদায়ের পথেই রাখে দলটি।

তবে শেষ পর্যন্ত স্বপ্ন ভেঙে গেছে হাঙ্গেরির। বদলি নেমে দলকে বাঁচিয়েছেন লেয়ন গোরেটস্কা। ৮৪ মিনিটে করা গোলে মহামূল্যবান ১ পয়েন্টে ইউরোপিয়ান চ্যাম্পিয়নশিপের শেষ ষোলোয় উঠল ইওয়াখিম লুভের দল। মিউনিখের আলিয়াঞ্জ অ্যারেনায় বুধবার রাতে ‘এফ’ গ্রুপের শেষ রাউন্ডের ম্যাচটি ২-২ ড্র হয়।

হাঙ্গেরির শুরুটা হয় স্বপ্নের মতো। ম্যাচের ১১ মিনিটে জার্মান সমর্থকদের স্তব্ধ করে দেন রোলান্দ সালাই। ডান প্রান্ত দিয়ে দারুণ এক আক্রমণ থেকে ভেসে আসা ক্রসে হেড করে গোল করেন হাঙ্গেরি এই স্ট্রাইকার।

পিছিয়ে পড়ে একের পর এক আক্রমণ চালায় জার্মানি। ২১তম মিনিটে সমতায় ফিরতে পারতো তারা। কিন্তু কর্নারে মাটস হুমেলসের জোরালো হেড লাগে ক্রসবারে।

জার্মানি সমতায় ফেরে ৬৬ মিনিটে। ফ্রি-কিক এগিয়ে এসে পাঞ্চ করতে চেয়ে বল মিস করেন হাঙ্গেরির গোলরক্ষক পেতার গুলাসি। জটলার ভেতর থেকে হেডে গোল করেন জার্মান মিডফিল্ডার হাভার্টজ।

এবার রোমাঞ্চ আরও বাড়িয়ে দিতে খুব বেশি সময় নিল না হাঙ্গেরি। খেলা পুনরায় শুরুর ৯০ সেকেন্ডে পর কিছু বুঝে উঠার আগেই জার্মানদের আরও একবার স্তব্ধ করে দেয় আসরে চমক জাগানিয়া পারফরম্যান্স করা হাঙ্গেরি। জার্মান রক্ষণভাগ পুরোপুরি গুছিয়ে ওঠার আগেই বক্সের ভেতর ঢুকে দারুণ এক হেডে গোল করেন মিডফিল্ডার শাফার। ইকায় গুন্দোগানের বদলি হয়ে মাঠে নামা গোরেটস্কা শেষ পর্যন্ত বাঁচান জার্মানিকে।

অন্যদিকে একই সময়ে শুরু আরেক ম্যাচে ফ্রান্সের সঙ্গে পর্তুগাল ২-২ ড্র করায় গ্রুপ রানার্সআপ হয়েছে জার্মানরা। ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোর জোড়া গোলে পর্তুগাল শেষ ষোলোতে উঠেছে সেরা তৃতীয় চার দলের একটি হয়ে।

ম্যাচের ২৭ মিনিটে বক্সে ভেসে আসা বল পাঞ্চ করে ক্লিয়ার করতে যান ফ্রান্সের গোলকিপার উগো লরিস। কিন্তু তার পাঞ্চ পর্তুগালের দানিলোর মাথায় আঘাত লাগলে পেনাল্টির বাঁশি বাজান রেফারি। ফ্রান্সের খেলোয়াড়রা প্রতিবাদ করলে ভিএআর দেখে রেফারি তার পেনাল্টির সিদ্ধান্ত বহাল রাখেন। পেনাল্টি থেকে গোল করে পর্তুগালকে এগিয়ে দেন রোনালদো।

এবার ফ্রান্সও সমতায় ফেরে পেনাল্টি থেকেই। ৪৪ মিনিটে বক্সে ঢোকার মুখে ফাউলের শিকার হন কিলিয়ান এমবাপ্পে। পেনাল্টি থেকে ফ্রান্সকে সমতায় ফেরান করিম বেনজেমা। ৪৭ মিনিটে ফ্রান্সকে এগিয়ে নেন বেনজেমা। পগবার লম্বা পাস পেয়ে বল জালে জড়ান তিনি। ম্যাচের ৬০ মিনিটে বক্সের মধ্য থেকে রোনালদোর একটি ক্রস থেকে বল হাতে লাগে ফ্রান্সের এক ডিফেন্ডারের। এবারও পেনাল্টি থেকে গোল করেন রোনালদো।

‘এফ’ গ্রুপ থেকে ৩ ম্যাচে ৫ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপের সেরা হয়ে শেষ ষোলোয় উঠেছে ফ্রান্স। কোয়ার্টার ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে সুইজারল্যান্ডের মুখোমুখি হবে তারা। ৩ ম্যাচে ৪ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপের দ্বিতীয় সেরা দল জার্মানি মুখোমুখি হবে ইংল্যান্ডের। ​গ্রুপে তৃতীয় পর্তুগাল শেষ ষোলোয় বেলজিয়ামের মুখোমুখি হবে

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

এই সম্পর্কিত আরও খবর...