জাপার দুর্গে উত্তেজনা, নেতাকর্মীদের মিশ্র প্রতিক্রিয়া

স্বদেশ বিদেশ ডট কম

  • প্রকাশিত: ১৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ৮:৩৬ অপরাহ্ণ

জাতীয় পার্টির (জাপা) দুর্গ খ্যাত রংপুর অঞ্চলে দলীয় কোন্দল চরম আকার ধারণ করছে। দলের সকল পদ পদবী থেকে অব্যাহতি পাওয়া সাবেক জাপা মহাসচিব মশিউর রহমান রাঙ্গার পক্ষে-বিপক্ষে চলছে নানা কর্মসূচি। ছড়িয়ে পড়ছে রাজনৈতিক উত্তোজনা। পরিস্থিতি মোকাবেলায় গোটা রংপুর অঞ্চলের বিভিন্ন স্থানে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। এ নিয়ে রংপুরে তৈরি হয়েছে মিশ্র প্রতিক্রিয়া।

গত বুধবার সংসদে বিরোধীদলীয় চিফ হুইফ ও রংপুরের সংসদ সদস্য মসিউর রহমান রাঙ্গাকে জাতীয় পার্টির প্রেসিডিয়ামসহ সব ধরনের পদ-পদবি থেকে অব্যাহতি দেন দলের চেয়ারম্যান সংসদ সদস্য জিএম কাদের। পার্টির চেয়ারম্যান হিসেবে গঠনতন্ত্রে প্রদত্ত ক্ষমতাবলে সাবেক মহাসচিব রাঙ্গাকে অব্যাহতি প্রদান করেছেন তিনি। ইতোমধ্যে এ আদেশ কার্যকর হয়েছে বলেও জাতীয় পার্টির পক্ষ থেকে বলা হয়েছ।

বৃহস্পতিবার রাতে লালমনিরহাট জেলা শহরের মিশন মোড়ে জাতীয় পার্টির বিক্ষুব্ধ নেতাকর্মীরা মশিউর রহমান রাঙ্গার কুশপুত্তলিকা দাহ করেন। এ সময় তারা মশিউর রহমান রাঙ্গাকে নিয়ে জিএম কাদের সিদ্ধান্তকে স্বাগতও জানান।

এর আগে বুধবার থেকে রংপুরসহ উত্তরের বিভিন্ন স্থানে মশিউর রহমান রাঙ্গার পক্ষে-বিপক্ষে চলছে নানা কর্মসূচি। রাত সাড়ে ৮টার দিকে রংপুর মহানগরীর সেন্ট্রাল রোডে জাতীয় পার্টি কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য, রংপুর সিটি কর্পোরেশন মেয়র ও মহানগরের সভাপতি মোস্তাাফিজার রহমান মোস্তফা বলেন, রাঙ্গা সাহেব পার্টির চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে যে চ্যালেঞ্জ ছুড়েছেন তা ঠিক করেননি। পার্টির বিরুদ্ধে গিয়ে কেউ কোনোদিন সুফল ভোগ করতে পারেনি।

একইদিন রাত সাড়ে ১০টার দিকে রংপুর নগরীর গ্র্যান্ড হোটেল মোড় থেকে জেলা মোটর মালিক সমিতির নেতা ও জেলা জাতীয় পার্টির সহ-সভাপতি আব্দুল মান্নানের নেতৃত্বে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। মিছিলে মোটর মালিক ও শ্রমিকরা ছাড়াও জাতীয় পার্টির রাঙ্গাপন্থীরা অংশ নেন। মিছিলটি প্রেসক্লাব চত্বর হয়ে জাহাজ কোম্পানি মোড়ে গিয়ে শেষ হয়।

সেখানে বিক্ষুব্ধ রাঙ্গাপন্থীরা পার্টির চেয়ারম্যান জি এম কাদেরের কুশপুত্তলিকা দাহ করে। মিছিল নিয়ে ফেরার পথে জিএম কাদেরবিরোধী বিভিন্ন স্লোগান দেন তারা। এ সময় দৈনিক দাবানল মোড়ে জাতীয় পার্টির নেতাকর্মীদের সঙ্গে তাদের প্রায় আধা ঘণ্টা ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। পরে বিপুল সংখ্যক পুলিশ তাদের ছত্রভঙ্গ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

জাতীয় পার্টির যুগ্ন মহাসচিব মোস্তফা সেলিম বেঙ্গল বলেছেন, রাঙ্গা সাহেব পার্টির চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে যে চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছেন তা ঠিক করেননি। সবার আগে দল বড়। দলের বিরুদ্ধে গিয়ে কেউ কোনোদিন সুফল ভোগ করতে পারেনি। দলের স্বার্থে চেয়ারম্যান যে সিদ্ধান্ত নিয়েছেন সেটাতে আমরা একমত। তাকে অব্যাহতি দেয়া হয়েছে। সময় হলে আবার দলে ফিরে আসার সুযোগ হতে পারে।

এই সম্পর্কিত আরও খবর...